Ritabhari Chakraborty: ‘আমি অন্তঃসত্ত্বা, আপনাদের আশীর্বাদ চাই’, বেবিবাম্পের ছবি শেয়ার ঋতাভরীর…


জি ২৪ ঘণ্টা ডিজিটাল ব্যুরো: ‘আমি ও আমার স্বামী এটা ঘোষণা করতে পেরে  খুবই খুশি যে আমি প্রেগন্যান্ট। আপনাদের ভালোবাসা ও আশীর্বাদ চাই’, বৃহস্পতিবার নেটপাড়ায় এই বার্তাটি লেখেন অভিনেত্রী ঋতাভরী চক্রবর্তী(Ritabhari Chakraborty)। এখানেই শেষ নয়। অভিনেত্রী আরও লেখেন, এটা ৯ মাসের জার্নি। প্রতিটা ধাপের গল্প তিনি ধীরে ধীরে জানাবেন। অভিনেত্রীর পোস্ট ঘিরে বাড়তে থাকে জল্পনা। কবে বিয়ে করলেন? কেই বা তাঁর স্বামী? তা নিয়ে শুরু হয় নানা জল্পনা।

শুক্রবার সকালেই এই বিষয়ে মুখ খোলেন অভিনেত্রী। আসলে সবটাই ছিল তাঁর আগামী ওয়েব সিরিজের প্রচার। সিরিজের নাম ‘নন্দিনী’। সেই সিরিজেই অন্তঃসত্ত্বা মায়ের জার্নি তুলে ধরবেন অভিনেত্রী। এদিন বেবিবাম্পের সঙ্গে ছবি পোস্টার করেন ঋতাভরী। ছবিটি তাঁর আগামী সিরিজের পোস্টার। কী নিয়ে এই সিরিজের গল্প?

আরও পড়ুন- Dev in Bagha Jatin: উসকো খুসকো চুল, মুখ ভর্তি ঘা, ‘বাঘা যতীন’-এর নয়া লুকে চমকে দিলেন দেব!

নন্দিনীর গল্পে স্নিগ্ধা (ঋতাভরী চক্রবর্তী অভিনীত) এক গর্ভবতী মহিলা, যিনি গর্ভে সন্তান ধারণ করতে পেরে খুবই খুশি। পরিবারের উত্তরসূরী আসার উপক্রম হওয়ায় খুশির হাওয়ায় ও বাড়ির প্রতিটি কোণে ফুটে ওঠে আনন্দ। কিন্তু স্নিগ্ধার জগৎ উল্টো হয়ে যায় যখন তার ডাক্তার জানতে পারেন যে তাঁর গর্ভের শিশুটি খুব শীঘ্রই মারা যেতে চলেছে এবং ফলস্বরূপ তাঁর গর্ভপাত করা প্রয়োজন। মধ্যরাতে যখন সবাই ঘুমিয়ে পড়ে, স্নিগ্ধার টেলিফোন বেজে ওঠে এবং একটি শিশুর কণ্ঠস্বর তাঁকে বলে ওঠে, মা! আমি মরে যাইনি, এখনও বেঁচে আছি এর পরের ঘটনাই গল্পের মূল বিষয়।

এই সিরিজ প্রসঙ্গে ঋতাভরী বলেন, ‘নন্দিনী এমন একটি গল্প যা বলা উচিত। আমি নিশ্চিত যে প্রতিটি মা নন্দিনীর সঙ্গে আত্মস্থ হতে পারবে কারণ তাঁরা যে সংগ্রামের মধ্য দিয়ে যায় তা তাঁদের সন্তান এবং নিজেদের সেই জার্নির সঙ্গে মিল খুঁজে পাবেন। ওয়েব ডেবিউ নিয়ে আমি খুব এক্সাইটেড। আমি সব দিয়েছি। গর্ভবতী মহিলার চরিত্রে অভিনয় করাটা আমার কাছে খুব চ্যালেঞ্জিং ছিল। আমি শিখতে, বুঝতে, অভিনয় করতে এবং তা নিয়েই বেঁচে থাকতে চেষ্টা করেছি। আশা করি, আমি ন্যায়বিচার করতে পারব।’

আরো পড়তে পারেন:  যুবলীগকে দেখলে শয়তানও পালিয়ে যায়: মায়া

পরিচালক ফালাক মীরের কথায়, ‘অনেক দিন ধরেই আমার ছবির জন্য গল্প খুঁজছিলাম। সায়ন্তনী পুততুণ্ডের উপন্যাসটি আমার স্ত্রী আমাকে দিয়েছিলেন। উপন্যাসটি পড়ার পর আমি চিত্রনাট্য লেখা শুরু করি। আমরা যখন লিড কাস্ট নিয়ে আলোচনা করছিলাম তখন আমার মাথায় প্রথম যে নামটা এসেছিল সেটা হল ঋতাভরী। ঋতাভরী নিজের কাজের প্রতি খুবই উৎসাহী ও নিবেদিতপ্রাণ। শুটিংয়ের সময় তিনি আমার দেওয়া প্রতিটি পুঙ্খানুপুঙ্খ বিস্তারিত তথ্য অনুসরণ করতেন এবং সেই অনুযায়ী সেগুলো কার্যকর করতেন’।

আরও পড়ুন- Jawan Box Office Collection: ‘জওয়ান’-এর হাত ধরেই কেল্লাফতে! ইতিহাস রচনার দোরগোড়ায় শাহরুখ…

এই সিরিজেই অভিনেত্রী ঋতাভরী চক্রবর্তীর ওয়েব ডেবিউ। সিরিজে স্নিগ্ধার জীবন তাঁর পরিবার ঘিরে। যেখানে আমরা দেবযানী চট্টোপাধ্যায়কে দেখব তাঁর শাশুড়ির চরিত্রে, সন্দীপ ভট্টাচার্যকে দেখব তাঁর শ্বশুরের চরিত্রে এবং কিঞ্জল নন্দকে দেখব তাঁর স্বামীর চরিত্রে।ছবির অন্যান্য চরিত্রগুলি হল সুহোত্র মুখোপাধ্যায়, শ্বেতা ভট্টাচার্য এবং আলিভিয়া সরকার। সায়ন্তনী পুততুন্ডুর উপন্যাস অবলম্বনে ফালাক মীর পরিচালিত ‘নন্দিনী’ আড্ডাটাইমস-এ মুক্তি পাচ্ছে ১৫ অক্টোবর।

(দেশ, দুনিয়া, রাজ্য, কলকাতা, বিনোদন, খেলা, লাইফস্টাইল স্বাস্থ্য, প্রযুক্তির টাটকা খবর, আপডেট এবং ভিডিয়ো পেতে ডাউনলোড-লাইক-ফলো-সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের AppFacebookWhatsapp ChannelX (Twitter)YoutubeInstagram পেজ-চ্যানেল)





Source link

এই পোস্টটি যদি ভালো লেগে থাকে তাহলে ফেইসবুক পেজটি লাইক দিন এবং এই রকম আরো খবরের এলার্ট পেতে থাকুন

 আরো পড়তে পারেন:  

Loading...
আরো পড়তে পারেন:  রাতে ঘন ঘন প্রস্রাবের কারণ কী? এ সমস্যার সমাধান কীভাবে সম্ভব?

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *