পাকিস্তানে জোড়াতালির কোয়ালিশন

পাকিস্তানের ৮ ফেব্রুয়ারির নির্বাচনের ফলাফলে ইমরান খানের পাকিস্তান তেহেরিক-ই ইনসাফ (পিটিআই) সমর্থিত স্বতন্ত্র প্রার্থীদের সংখ্যাগরিষ্ঠতা বঞ্চিত করা হয়েছে; এ অভিযোগের অসন্তোষ জিইয়ে রেখে নতুন কোয়ালিশন সরকার গঠিত হলো। পাকিস্তান মুসলিম লীগ-নওয়াজ (পিএমএল-এন), পাকিস্তান পিপলস পার্টির (পিপিপি) মাঝে নতুন সরকারে কাজ করার মতো চলনসই একটি জুটি তৈরি হয়েছে। কিন্তু সমস্যা হচ্ছে, পিপিপি নেতা বিলাওয়াল ভুট্টো বলছেন, যেহেতু কারোরই একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা নেই; তাই এই ঝুলন্ত সংসদের অর্থ হচ্ছে; আবার একটি নতুন নির্বাচন আয়োজন। কিন্তু পাকিস্তানের এই ভঙ্গুর অর্থনৈতিক অবস্থায় নতুন নির্বাচনের পথে হাঁটার জো নেই। তাই পিপিপি সরকার গঠনে পিএমএলএনকে সহযোগিতা করবে; শাহবাজ শরিফকে প্রধানমন্ত্রী হতে সমর্থন দেবে। কিন্তু মন্ত্রিসভায় কোনো সদস্য পদ নেবে না। তবে জাতীয় সংসদের স্পিকার ও চারটি প্রদেশে গভর্নরের সাংবিধানিক পদগুলো তারা নিচ্ছে।

পিপলস পার্টির নেতা বিলাওয়ালের এই যে ভঙ্গুর রাষ্ট্র মেরামতের দায়িত্ব না নেওয়া; পিটিআই-এর চলমান আন্দোলনে পর্যুদস্ত পরিস্থিতিতে রাষ্ট্র পরিচালনা থেকে দূরে থাকা; এই পরিস্থিতির কৌতুক অনুবাদ এমনটাই শোনা যাচ্ছে পাকিস্তানের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে যে, পিপলস পার্টি সমাজের চাপাচাপিতে পিএমএলএনকে বিয়ে করতে রাজি কিন্তু সংসারের কোনো দায়িত্ব নেবে না।

Source link

এই পোস্টটি যদি ভালো লেগে থাকে তাহলে ফেইসবুক পেজটি লাইক দিন এবং এই রকম আরো খবরের এলার্ট পেতে থাকুন

 আরো পড়তে পারেন:  

Loading...
আরো পড়তে পারেন:  মিয়ানমার থেকে গুলি এলে পাল্টা গুলি চালাবে বাংলাদেশ- এ বার্তার অর্থ কী?