বন্ধ্যত্বের প্রমাণ নেই করোনার টিকায়

 

সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ঘুরে বেড়ানো ‘তত্ত্ব’ বলছে, করোনা টিকা গ্রহণে নারীরা জন্মদানে অক্ষম হতে পারেন; কিন্তু বিশেষজ্ঞরা সেই তত্ত্বকে উড়িয়ে দিয়ে বলেছেন- এ ধরনে কোনো আশঙ্কা নেই। গতকাল এ খবর জানিয়েছে বিবিসি।

টিকা নিয়ে লোকজন বলছে যে, ফাইজারের টিকা নারীদের প্রজননে সমস্যা তৈরি করতে পারে বা ডিম্বাণুুতে আক্রমণ করতে পারে। কিন্তু লন্ডনের কিংস কলেজের অধ্যাপক লুসি চ্যালেপ বলেন, এ নিয়ে ‘বিশ্বাসযোগ্য কোনো প্রমাণ পাওয়া যায়নি।’ এতেও বিভ্রান্তির শেষ হয়নি বলে জানান ওই অধ্যাপক। তার মতে, এমন কথাতেও লোকে ভুল বুঝতে পারে যে টিকাটি পর্যাপ্ত পরীক্ষা-নিরীক্ষা হয়নি।

বিশেষজ্ঞদের বরাত দিয়ে বিবিসি জানিয়েছে, করোনার টিকা শরীরের মধ্যে কোনো ক্ষতিকর বিভাজন ছাড়াই শরীরে এক ধরনের বার্তা প্রেরণ করে, যার মধ্য দিয়ে করোনার ‘স্পাইক’ বা কাঁটাটি ধ্বংস হয়ে যায়। এ ছাড়া টিকা মানবদেহের ইমিউন সিস্টেমকে শক্তিশালী করে। কিন্তু কারও শরীরে জিনগত বৈশিষ্ট্যে পরিবর্তন করার কোনো ক্ষমতা এসব টিকার নেই।

সূত্র: আমাদের সময়

 

এই পোস্টটি যদি ভালো লেগে থাকে তাহলে ফেইসবুক পেজটি লাইক দিন এবং এই রকম আরো খবরের এলার্ট পেতে থাকুন

 আরো পড়তে পারেন:  

DSA should be abolished
/ জাতীয়, সব খবর
Loading...
আরো পড়তে পারেন:  ফেনীতে ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করলেন একই পরিবারের ৫ জন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *