১৬ নভেম্বর: ইতিহাসে আজকের এই দিনে

 
১৯৯৩ সালের এই দিনে জঙ্গিদের আত্মসমর্পণের মধ্য দিয়ে কাশ্মীরে ৩২ দিনের অচলাবস্থার অবসান ঘটে।

 

আজ ১৬ নভেম্বর ২০১৯, শরিবার। ২ অগ্রহায়ণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ। গ্রেগরীয় বর্ষপঞ্জী অনুসারে বছরের ৩২০ তম (অধিবর্ষে ৩২১ তম) দিন।

এক নজরে দেখে নিন ইতিহাসের এ দিনে ঘটে যাওয়া উল্লেখযোগ্য ঘটনা, বিশিষ্টজনের জন্ম-মৃত্যুদিনসহ গুরুত্বপূর্ণ আরও কিছু বিষয়।

ঘটনাবলি:

১৩৮০ – ফ্রান্সের রাজা ষষ্ঠ জর্জ করমুক্তির ঘোষণা দেন।

১৩৮৪ – জাডউইগা পোলান্ডের রাজ্যভার গ্রহণ করেন।

১৭৯৩ – আইরিশ চিত্রকর ফ্রান্সিস ড্যানবির জন্ম।

১৮০১ – নিউ ইয়র্ক ইভনিং পোস্টের প্রথম সংস্করণ প্রকাশিত হয়।

১৮১২ – ‘দ্য টাইমস’ পত্রিকার প্রতিষ্ঠাতা জন ওয়ালটারের মৃত্যু।

১৮২৪ – নিউ ইয়র্ক নগরীর ফিফথ এভিনিউ খুলে দেওয়া হয়।

১৮৬৯ – পোর্ট সৈয়দে সুয়েজ খাল আনুষ্ঠানিকভাবে নৌ চলাচলের জন্য উন্মুক্ত হয়।

১৮৯০ – অবিভক্ত ভারতে প্রথম সিরাম ভ্যাকসিন ও পেনিসিলিন প্রস্তুতকারক বিশিষ্ট ভেষজ বিজ্ঞানী ও চিকিৎসক হেমেন্দ্রনাথ ঘোষের জন্ম।

১৮৯৬ – সমাজসেবক ও দানবীর রনদা প্রসাদ সাহার জন্ম।

১৯০৫ – স্বদেশি আন্দোলনের অনুপ্রেরণায় সরকারি বিদ্যাচর্চা বর্জন আন্দোলনের প্রেক্ষাপটে আশতোষ চৌধুরীর সভাপতিত্বে ‘ন্যাশনাল কাউন্সিল অফ এডুকেশন’ স্থাপিত হয়।

১৯২২ – নরওয়েজীয় মার্কিন কম্পিউটার আর্কিটেক্ট এবং হাইটেক উদ্যোক্তা জিন আম্‌ডাল জন্মগ্রহন করেন।

১৯২৩ – অস্বাভাবিক মুদ্রাস্ফীতির পর জার্মানিতে নতুন মুদ্রাব্যবস্থা চালু হয়।

১৯৩০ – নাইজিরিয়ার ঔপন্যাসিক ও সমালোচক চিনুয়া আচিবির জন্ম।

১৯৩৪ – বিশিষ্ট মুসলিম চিন্তাবিদ ও ফকীহ আয়াতুল্লাহিল উজমা আব্দুল করিম হায়েরি ইয়াযদি ইরানের কোম নগরীতে মৃত্যুবরণ করেন।

১৯৪৫ – গবেষক ও লেখক নরেন বিশ্বাসের জন্ম।

১৯৪৫ – ভিয়েতনামে ফ্রান্সের সেনাদের হামলা শুরুর মধ্য দিয়ে দেশটির জনগণের দীর্ঘ ও রক্তক্ষয়ী স্বাধীনতা সংগ্রাম শুরু হয়।

১৯৪৬ – বিশ্বে প্রথমবারের মত কৃত্রিমভাবে বৃষ্টিপাত সৃষ্টি করা হয়।

আরো পড়তে পারেন:  ইরাকে আধাসামরিক বাহিনীর ঘাঁটিতে মার্কিন হামলায় নিহত ২৫

১৯৮৬ – নাট্যকার বিধায়ক ভট্টাচার্যের মৃত্যু।

১৯৯৩ – জঙ্গিদের আত্মসমর্পণের মধ্য দিয়ে কাশ্মীরে ৩২ দিনের অচলাবস্থার অবসান ঘটে।

২০১২- বাংলাদেশী চলচ্চিত্র নির্মাতা এবং অভিনেতা সুভাষ দত্ত মৃত্যুবরণ করেন।

সূত্র: যুগান্তর

 

আরো পড়ুন:

 

এই পোস্টটি যদি ভালো লেগে থাকে তাহলে ফেইসবুক পেজটি লাইক দিন এবং এই রকম আরো খবরের এলার্ট পেতে থাকুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *