শান্তিতে নয়, টুইট সাহিত্যে নোবেল পেতে পারেন ট্রাম্প

‘শান্তিতে নোবেল পাওয়ার একেবারেই কোনো সম্ভাবনা নেই ট্রাম্পের। তবে ভাগ্য সুপ্রসন্ন হলে সাহিত্যে পেয়ে যেতে পারেন তার কাক্সিক্ষত নোবেল। কারণ ক্ষমতার চার বছরে যুক্তরাষ্ট্রের প্রত্যেকটি ঘটনায় টুইটের পর টুইট করে টুইটার বিবৃতিকে ‘টুইট সাহিত্যে’র পর্যায়ে নিয়ে গেছেন। যদি আসলেই তিনি নোবেল পান, এই যোগ্যতাতেই পাবেন।’

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পকে শান্তিতে নোবেল দেয়া নিয়ে সৃষ্ট গুঞ্জনের মধ্যে এই ব্যঙ্গাÍক মন্তব্য করলেন অসলোর পিস রিসার্চ ইন্সটিটিউটের পরিচালক হেনরিক উর্দাল। সোমবার ঘোষণা করা হবে শান্তিতে নোবেলজয়ীর নাম। এর মাত্র তিন দিন আগেই কে পাচ্ছেন শান্তিতে নোবেল- ধাধাটি রীতিমতো গোলকধাঁধা হয়ে উঠেছে গোটা বিশ্বে।

কেউ বলছেন ট্রাম্প, কারও মুখে ইসরাইলের প্রধনমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহুর নাম। করোনা মহামারী নিয়ন্ত্রণে ‘অসামান্য’ অবদানের জন্য বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার নামও ভাসছে নোবেল হাওয়ায়।

সব মিলিয়ে ৩১৮ জন ব্যক্তি ও সংস্থার মনোনয়ন তালিকা ঘুরছে হাতে হাতে। শান্তির নোবেল নিয়ে এমন অস্বস্তির মধ্যেই বুধবার ট্রাম্পকে নিয়ে হাস্যকর মন্তব্য করেন ইউরোপের খ্যাতনামা নোবেল ইতিহাস বিশেষজ্ঞ উর্দাল।

ছয় বিষয়ে গুরুত্বপূর্ণ অবদানের জন্য নোবেল প্রদান করা হলেও সবার বিশেষ নজর থাকে নোবেল শান্তি পুরস্কারের দিকে। আগামী সোমবার নরওয়েজিয়ান নোবেল কমিটি জানাবে, এ বছর কে বা কারা পেতে যাচ্ছে শান্তিতে নোবেল। এ নিয়ে চারদিকে চলছে নানা জল্পনা-কল্পনা।

নোবেল ইন্সটিটিউটের মতে, এ বছর শান্তিতে মোট ৩১৮ প্রার্থীর নাম প্রস্তাব করা হয়েছে- যার মধ্যে রয়েছে ২১১ জন ব্যক্তি এবং ১০৭টি প্রতিষ্ঠান। মনোনীতদের এই বিশাল তালিকার মধ্যে কে সেই ভাগ্যবান- তা নিয়ে জোর গুঞ্জন চলছে। জমে উঠেছে জুয়ার আসরও।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, শক্তিশালী প্রতিদ্বন্দ্বীদের মধ্যে রয়েছে গ্রেটা থানবার্গ এবং মানবাধিকার ও গণমাধ্যমের স্বাধীনতাবিষয়ক সংগঠনগুলো। গত বছরও সম্ভাব্য প্রার্থীর তালিকায় ছিলেন গ্রেটা। কিন্তু শেষ পর্যন্ত তা ইথিওপিয়ার প্রধানমন্ত্রী আবি আহমেদের ঝুলিতে যায়।

আরো পড়তে পারেন:  মস্তিষ্কে টিউমার সরাতে অস্ত্রোপচারকালে বেহালা বাজাচ্ছেন রোগী (ভিডিও)

সাংবাদিক অধিকারবিষয়ক সংগঠনগুলোর মধ্যে রিপোর্টার্স উইদাউট বর্ডার্স (আরএসএফ) ও যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক কমিট টু প্রটেক্ট জার্নালিস্টস এগিয়ে রাখছেন বিশেষজ্ঞরা। নোবেলবিষয়ক ঐতিহাসিক আসলে এসভিন বলেছেন, রিপোর্টার্স উইদাউট বর্ডার্স (আরএসএফ) তার প্রথম পছন্দ। কিন্তু গ্রেটার ‘সম্ভাবনা নিশ্চিতভাবেই ভালো’।

আর এটা সত্যি হলে পাকিস্তানের নারী অধিকারকর্মী মালালা ইউসুফজায়ের পরই দ্বিতীয় সর্বকনিষ্ঠ নোবেলজয়ী হবেন গ্রেটা।

এএফপির এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, শান্তিতে নোবেল যেই পাক, তাতে করোনা মহামারীর প্রভাব থাকবে। আর এজন্য বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাকে গ্রেটার চেয়ে (ডব্লিউএইজও) এগিয়ে রাখছেন অনেক বিশেষজ্ঞই।

করোনাভাইরাস পরিস্থিতি সামলানোয় ১০ মাস ধরে কাজ করছে সংস্থাটি। এছাড়া ফ্রাইডেজ ফর ফিউচার, ন্যাটো, ইউরোপিয়ান কোর্ট অব হিউম্যান রাইটস, জুলিয়ান অ্যাসাঞ্জ, এডওয়ার্ড স্নোডেন, চেলসি ম্যানিং, হংকংয়ের গণতন্ত্রকামী জনতা এবং কারাগারে অন্তরীণ সৌদি অধিকারকর্মী লুজাইন আল হাথলৌল।

ট্রাম্প সমর্থকরা মনে করছেন, ইসরাইল ও সংযুক্ত আরব আমিরাতের মধ্যে সম্পর্ক স্বাভাবিকীকরণে অবদান এবং বলকান অঞ্চলে শান্তি প্রতিষ্ঠার উদ্যোগ নেয়ায় এ তালিকায় থাকতে পারে ট্রাম্পের নামও। গত মাসে তার নাম প্রস্তাব করেন নরওয়ের দুই এমপি। তবে শেষ পর্যন্ত তেমনটা ঘটবে না বলেই মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা। উর্দাল বলেন, প্রকৃতপক্ষে নোবেল পাওয়ার জন্য ট্রাম্প তেমন কিছুই করেননি।’

এদিকে এ বছর নোবেল বিজয়ীদের পুরস্কারের অর্থ আগের চেয়ে বাড়ছে। এবার পুরস্কার হিসেবে গত বছরের চেয়ে ১০ লাখ সুইডিশ ক্রোনার বেশি পাবেন বিজয়ীরা। মানে পুরস্কারের পরিমাণ বেড়ে দাঁড়াল ১ কোটি ক্রোনারে। বাংলাদেশি টাকায় সাড়ে ৯ কোটি টাকা।

এই অর্থ প্রতিটি পুরস্কারের বিজয়ীরা অনুপাত অনুযায়ী ভাগ করে নেবেন। পদার্থবিজ্ঞানে যে তিন বিজ্ঞানী নোবেল পেয়েছেন, তাদের মধ্যে রজার পেনরোজ পাবেন ৫০ লাখ ক্রোনার। বাকি দু’জন ২৫ লাখ করে পাবেন।

তারা চাইলে প্রাপ্য অর্থ নিজের কাছে রাখতে পারেন। আবার ভালো কাজে দানও করে দিতে পারেন। পুরস্কারের অর্থ কেন বাড়ানো হল, এমন প্রশ্নের জবাবে নোবেল ফাউন্ডেশনের প্রধান লার্স হেইকেনস্টেন বলেছেন, ‘এমন সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। কারণ এখন আমাদের খরচ ও মূলধন আগের চেয়ে স্থিতিশীল অবস্থায় রয়েছে।’

আরো পড়তে পারেন:  করোনাভাইরাসকে হার মানাল নিউজিল্যান্ড; কিভাবে?

নোবেল পুরস্কার দেয়া হচ্ছে ১৯০১ সাল থেকে। পুরস্কারটি চালু করেন ডিনামাইটের উদ্ভাবক আলফ্রেড নোবেল। তিনি নোবেল পুরস্কারের জন্য ফাউন্ডেশনের কাছে ৩ কোটি ১০ লাখ ক্রোনার রেখে যান। বর্তমান মূল্যে যার পরিমাণ ১৮০ কোটি ক্রোনার বা ১ হাজার ৭১০ কোটি ৬৫ লাখ টাকার মতো।

 

সূত্র: যুগান্তর

এই পোস্টটি যদি ভালো লেগে থাকে তাহলে ফেইসবুক পেজটি লাইক দিন এবং এই রকম আরো খবরের এলার্ট পেতে থাকুন

 আরো পড়তে পারেন:  

Loading...
আরো পড়তে পারেন:  দোষ লুকাতে ভাইকে সেফটি ট্যাংকে ফেলে হত্যা

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *