লাখ টাকাসহ হাতেনাতে ধরা অডিটর ঘুষের ৫ লাখ টাকাসহ হাতেনাতে ধরা অডিটর

 

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় শ্রমিক-কর্মচারীদের বকেয়া বেতন-ভাতার জটিলতা নিরসনের জন্য পাঁচ লাখ টাকা ঘুষ নেয়ার সময় হাতেনাতে ধরা পড়েছেন জেলা হিসাব রক্ষণ অফিসের অডিটর মো. কুতুব উদ্দিন।

বৃহস্পতিবার (২৫ জুন) বিকেলে জেলা শহরের কাউতলি এলাকার নিজ কার্যালয় থেকে জাতীয় নিরাপত্তা গোয়েন্দা (এনএসআই) সদস্যদের সহযোগিতায় তাকে আটক করে সদর মডেল থানা পুলিশ। সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, ব্রাহ্মণবাড়িয়া সড়ক ও জনপথ (সওজ) বিভাগের বিভিন্ন শাখায় ওয়ার্ক চার্জে কাজ করা তৃতীয় ও চতুর্থ শ্রেণির অর্ধশতাধিক শ্রমিক-কর্মচারীর চাকরি আদালতের নির্দেশে সম্প্রতি নিয়মিত করা হয়েছে। তবে ওসব শ্রমিক-কর্মচারীদের দীর্ঘদিনের বকেয়া বেতন পরিশোধ নিয়ে জটিলতা দেখা দেয়। সেই জটিলতা নিরসনের জন্য অডিটর কুতুব উদ্দিন বৃহস্পতিবার বিকেলে সওজ বিভাগের তিনজন শ্রমিক-কর্মচারীর কাছ থেকে পাঁচ লাখ টাকা ঘুষ নেন। পরবর্তীতে এনএসআই সদস্যরা অডিটর কুতুব উদ্দিনের টেবিলের ড্রয়ার থেকে ঘুষের টাকা জব্দ করে তাকে পুলিশের হাতে তুলে দেন।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সওজ বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী পঙ্কজ ভৌমিক বলেন, ওয়ার্ক চার্জে কাজ করা শ্রমিক-কর্মচারীদের চাকরি আদালতের নির্দেশে নিয়মিত হয়েছে। আদালত থেকে তাদেরকে বকেয়া বেতন দেয়ারও নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। সেই বেতনের টাকা তোলার জন্য শ্রমিক-কর্মচারীদের কাছ থেকে ঘুষ নেয়ার খবর শুনেছি। বেতন তো তাদের হক, এটার জন্য তো কোনো কিছু দেয়া লাগে না।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর মডেল থানা পুলিশের দুই নম্বর ফাঁড়ির পরিদর্শক (ইন্সপেক্টর) মো. সোহাগ রানা বলেন, এ ঘটনায় সড়ক ও জনপথ বিভাগের পক্ষ থেকে মামলা করা হবে। আমরা মামলাটি দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) কাছে পাঠাব। দুদক মামলাটি তদন্ত করবে।

 

সূত্র: পূর্বপশ্চিমবিডি

এই পোস্টটি যদি ভালো লেগে থাকে তাহলে ফেইসবুক পেজটি লাইক দিন এবং এই রকম আরো খবরের এলার্ট পেতে থাকুন

 আরো পড়তে পারেন:  

Loading...
আরো পড়তে পারেন:  আট বছরের পেশোয়া ৪ মাসে পুরো কুরআন মুখস্ত করলো!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *