মিয়ানমারের কোনো নাগরিককেই আর প্রবেশ করতে দেওয়া হবে না: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী 

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান বলেছেন, রোহিঙ্গা বা মিয়ানমারের অন্য কোনো নাগরিক, কাউকেই আর আসতে দেওয়া হবে না।

বৃহস্পতিবার রাতে রোহিঙ্গা ক্যাম্পের আইনশৃঙ্খলা সংক্রান্ত মতবিনিময় সভা শেষে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন তিনি।

কক্সবাজার হিলটপ সার্কিট হাউসে জেলা প্রশাসক মুহাম্মদ শাহীন ইমরানের সভাপতিত্বে এ সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান।

তিনি বলেন, রোহিঙ্গা ক্যাম্পে অস্ত্রের ঝনঝনানি, তারা বিভিন্ন দল উপদলে বিভক্ত হয়েছে।

এ কারণে ক্যাম্পে খুনখারাবি হচ্ছে। এসব বন্ধে বিজিবি, এপিবিএন এবং সেনাবাহিনীও কাজ করছে।

রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দেওয়ার কথা জানিয়ে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী বলেন, আমরা চাই ক্যাম্পে খুনখারাবি ও রক্তপাত বন্ধ করা, কোনো দুর্ঘটনা যেন না ঘটে সেজন্য পুলিশকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

ক্যাম্পের সার্বিক নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা হচ্ছে জানিয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ক্যাম্পের কাঁটাতার দিয়ে যেন কেউ বের হতে না পারে সেই লক্ষ্যে নষ্ট হয়ে যাওয়া কাঁটাতারগুলো সংস্কার করা হবে, রোহিঙ্গারা যাতে প্রয়োজন ব্যতীত বের হতে না পারে।

স্থানীয় সংসদ সদস্য ও জাতীয় সংসদের হুইপ সাইমুম সরওয়ার কমল জানান, দেশি বিদেশি কোনো সংস্থা যেন রোহিঙ্গাদের প্রলুব্ধ করতে না পারে সে বিষয়েপ্রশাসনকে কড়া নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

 

নতুন করে যেন কোনো রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশ করতে না পারে সে বিষয়ে বিজিবিকেও নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে বলেও জানান তিনি।

 

মতবিনিময় সভায় মহেশখালী-কুতুবদিয়ার সংসদ সদস্য আশেক উল্লাহ রফিক, পুলিশের মহাপরিদর্শক চৌধুরী আব্দুল্লাহ আল মামুন, শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার মিজানুর রহমান, এপিবিএনের প্রধান অতিরিক্ত মহাপরিদর্শক সেলিম মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর, অতিরিক্ত মহাপরিদর্শক আনোয়ার হোসেনসহ আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ও প্রশাসনের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

Source link

এই পোস্টটি যদি ভালো লেগে থাকে তাহলে ফেইসবুক পেজটি লাইক দিন এবং এই রকম আরো খবরের এলার্ট পেতে থাকুন

 আরো পড়তে পারেন:  

আরো পড়তে পারেন:  ভিকারুননিসা স্কুলের শিক্ষকের বিরুদ্ধে যৌন নির্যাতনের অভিযোগ নিয়ে যা জানা যাচ্ছে
যশোরে প্লাস্টিকের ভাঙ্গারির দোকানে অগ্নিকান্ডের ঘটনায়
/ সব খবর
Loading...
আরো পড়তে পারেন:  বিফলেই গেল যুদ্ধবিরতি আলোচনা, রাফায় রাতভর ইসরায়েলি হামলা