মার্কিন সেনা বহিষ্কারে ইরাকের পার্লামেন্টে প্রস্তাব পাস

ইরানের আল-কুদস ফোর্সের প্রধান মেজর জেনারেল কাসেম সোলাইমানি ও ইরাকি মিলিশিয়া বাহিনী হাশদ আস সাবির কমান্ডার আবু মাহদি আল-মুহান্দিস হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় দেশটি থেকে মার্কিন সেনা বহিষ্কারের প্রস্তাব পাস হয়েছে।

রোববার ইরাকের পার্লামেন্টে আইনপ্রণেতাদের জরুরি বৈঠকে এ সংক্রান্ত প্রস্তাবটি পাস হয় বলে আনাদলু এজেন্সি জানিয়েছে।

বাগদাদে মার্কিন ড্রোন হামলায় ইরানি কমান্ডার কাসেম সোলাইমানিকে হত্যার দুই দিনের মাথায় এ প্রস্তাব পাস করল ইরাকি পার্লামেন্ট।

যুক্তরাষ্ট্রের এমন হত্যাকাণ্ডকে নিজেদের সার্বভৌমত্বের ওপর আঘাত বলে মন্তব্য করেছে ইরাক।

শীর্ষ দুই কমান্ডারের হত্যার পর ইরাকে নিয়োজিত মার্কিন সেনাদের দেশ থেকে বহিষ্কারের জন্য চাপ প্রয়োগ করছে দেশটির সাধারণ মানুষ।

ইরাকি জনগণ ও রাজনৈতিক নেতাদের আহ্বানে সাড়া দিয়ে পার্লামেন্টে জরুরি অধিবেশন ডাকেন তত্ত্বাবধায়ক সরকারের প্রধান আদিল আবদুল মাহদি। জরুরি বৈঠকে পার্লামেন্ট সদস্যরা বিলটি পাস করিয়ে নেন।

জানা যায়, বিলটির প্রতি সমর্থন জানিয়েছে ১৭০ জন সংসদ সদস্য। বিলটি পাসের জন্য ১৫০ জন সংসদ সদস্যের সমর্থন প্রয়োজন ছিল।

এক বিবৃতিতে ইরাকের সংসদ বলেছে যে, এ সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন করা সরকারের বাধ্যবাধকতার মধ্যে রয়েছে।

ইরাকের অন্তর্বর্তীকালীন প্রধানমন্ত্রী আদিল আবদুল মাহদী বলেন, অভ্যন্তরীণ ও বাইরের নানা প্রতিবন্ধকতা সত্ত্বেও নৈতিকতা ও বাস্তবতার দিক থেকে মার্কিন বাহিনীকে প্রত্যাহার করাই হবে ইরাকের জন্য সেরা সিদ্ধান্ত।

ইরাকের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে ও জঙ্গিগোষ্ঠী আইএস ঠেকাতে ইরাকের সেনাদের সহযোগিতায় পাঁচ হাজার ২০০ মার্কিন সৈন্য রয়েছে বলে জানা গেছে।

পার্লামেন্টের আইন বিষয়ক কমিটির প্রধান আমার আল শিবলি বলেন, আইএসকে পরাজিত করার পর মার্কিন সেনাদের এখন আর আমাদের প্রয়োজন নেই। দেশ রক্ষায় আমাদের সশস্ত্র বাহিনী রয়েছে।

এদিকে জেনারেল কাসেম সোলাইমানি ও ইরাকি কমান্ডার নিহত হওয়ার ঘটনায় শনিবার বাগদাদজুড়ে শোকমিছিল হয়েছে। এসময় ক্ষুব্ধ লোকজনকে ‘আমেরিকা সবচেয়ে বড় শয়তান’ বলে স্লোগান দিতে দেখা গেছে।

আরো পড়তে পারেন:  শবে বরাতে হালুয়া-রুটির প্রচলন হয়েছিল কিভাবে?

শোকার্তদের অনেকের চোখ দিয়ে পানি ঝরছিল। তারা ‘নো, নো, আমেরিকা’, ‘আমেরিকা নিপাত যাক, ইসরাইল নিপাত যাক’ বলে স্লোগান দিচ্ছিলেন।

সূত্র: যুগান্তর

এই পোস্টটি যদি ভালো লেগে থাকে তাহলে ফেইসবুক পেজটি লাইক দিন এবং এই রকম আরো খবরের এলার্ট পেতে থাকুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *