বিশ্বকাপের চিন্তা বাদ দিয়ে আসন্ন বিয়ে নিয়ে ব্যস্ত মুমিনুল!

 

মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে বিশ্বকাপ নিয়ে আলোচনার শেষ নেই! কে থাকবে দলে আর কে থাকবে না তা নিয়ে নানা গুঞ্জন। তবে এরই মধ্যে নিশ্চিত দেশের টেস্ট স্পেশালিস্ট খ্যাত মুমিনুল হক সৌরভ থাকছেন না আসন্ন ইংল্যান্ড বিশ্বকাপে বাংলাদেশ দলে। এই কঠিন বাস্তব সত্যটা খুব ভালো করেই জানেন দেশের টেস্ট ক্রিকেটের অন্যতম সেরা এই ব্যাটসম্যান।

১৮ই এপ্রিলের মধ্যেই বিশ্বকাপের চূড়ান্ত স্কোয়াড ঘোষণা করার কথা রয়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি)। অবশ্য তার একদিন পরই জীবনের নতুন ইনিংস শুরু করতে যাচ্ছেন মুমিনুল। বিয়ের পিঁড়িতে বসবেন সেদিনই।

মুমিনুল বর্তমানে ব্যস্ত ঢাকা প্রিমিয়ার ক্রিকেট লীগ নিয়েও। এ সময়ে নিজের ভাবনা নিয়ে তিনি বলেন, ‘হ্যাঁ, সামনেই বিশ্বকাপ। খুব বেশিদিন বাকি নেই। অবশ্য প্রতিটি ক্রিকেটারের স্বপ্ন থাকে দেশের হয়ে ক্রিকেটের সব বড় আসরে খেলার। কিন্তু আমি কিছুটা হলেও জানি যে আমার সুযোগ হয়তো নেই। তাই এ নিয়ে ভেবে নিজের ওপর কোনো ধরনের চাপ নিতে চাচ্ছি না। আমি একজন প্রফেশনাল ক্রিকেটার। আমার জন্য খেলা দরকার, খেলছি ঢাকা প্রিমিয়ার লীগে। নিজের ব্যাটিংয়ের ভুল-ত্রুটিগুলো শুধরে নেয়ার চেষ্টাও করছি। আর জানেনই তো ১৯ তারিখ বিয়ে করছি। সেটি নিয়ে ব্যস্ত আছি খুব।’

তবে এরই মধ্যে বিশ্বকাপ দলে যাদের থাকা প্রায় নিশ্চিত তাদের ওপর দারুণ বিশ্বাস মুমিনুলের। তার মতে এটি হবে বাংলাদেশের সেরা ও অভিজ্ঞ বিশ্বকাপ দল। তিনি বলেন, ‘মাশরাফি ভাই থেকে শুরু করে সাকিব, তামিম, মুশফিক ও মাহমুদুল্লাহ ভাইয়ের মতো সেরা ও অভিজ্ঞ ক্রিকেটাররা আছেন। এছাড়াও সৌম্য, সাব্বির, মোস্তাফিজ, মিরাজ ও লিটনরাও এতদিনে দারুণ অভিজ্ঞতা অর্জন করেছে। সেই হিসেবে বলবো দলে যাদের জায়গা পাওয়ার কথা শুনছি তাদের বেশির ভাগই অভিজ্ঞ। এমন একটি দলের যেকোনো প্রতিপক্ষের বিপক্ষে লড়াই করে জেতার সম্ভাবনা দারুণ। শেষবার যে দল ছিল তারচেয়ে খুব বেশি পরিবর্তন নেই। সেবার দল কোয়ার্টার ফাইনাল খেলেছে। এবার আমিতো আশা করি বাংলাদেশ দল আরো বড় চমক দেখাতে পারে।’

দলে কে থাকবেন তা নিয়ে যেমন আলোচনা আছে তেমনই বিশ্বকাপ স্কোয়াডে ওপেনিং তামিম ইকবালের পার্টনার নিয়েও আছে চিন্তা। তামিমের পার্টনার হিসেবে সৌম্য সরকার ও লিটনের নাম শোনা যাচ্ছে। এরা দু’জনই ধারাবাহিক নয়। সেই সঙ্গে দলে ব্যাটিংয়ের সঙ্গে পেসারদের সক্ষমতা নিয়েও আছে প্রশ্ন।

দলের এই দুর্বল দিক নিয়ে মুমিনুল বলেন, ‘হ্যাঁ, এটি সত্যি যে লিটন ও সৌম্য নিয়মিত রান পাচ্ছে না। ঘরোয়া ক্রিকেটেও খুব একটা রানে নেই। কিন্তু আমি মনে করি না তাদের মতো প্রতিভাবান ব্যাটসম্যানদের এখান থেকে বের হতে খুব বেশি সময় লাগবে। দেখবেন বিশ্বকাপে ঠিকই বড় ইনিংস খেলে দেবে। আর কন্ডিশন যে খুব কঠিন তাও নয়। এছাড়াও যে উইকেট হবে আশা করি সব দলের জন্যই সমান সুযোগ থাকবে ব্যাটিং বোলিংয়ে। আমাদের যা করতে হবে শুধুমাত্র নিজেদের দিনে সেরাটা খেলতে হবে। দল হিসেবে পারফরম্যান্স করতে হবে।’

৪ বছর প্রেম করে বিয়ের পিঁড়িতে বসতে যাচ্ছেন মুমিনুল। বলা যায় প্রেমের সফল পরিণতি। তবে বিয়ে তার ক্রিকেট জীবনে প্রভাব ফেলবে না বলেই মনে করেন এ তারকা ক্রিকেটার। সেই সঙ্গে আস্থা তার ক্রিকেট জীবনে আরো বড় অনুপ্রেরণাই হবে হবু স্ত্রী। তিনি বলেন, ‘আমি মনে করি না বিয়ে করলে আমার জীবনে অনেক বড় কিছু বদলে যাবে বা আমার ক্রিকেট জীবনে প্রভাব পড়বে। হ্যাঁ, এটি সত্যি যে, একজন সাপোর্ট করার মতো জীবনসঙ্গী পাবো। বিয়ের আগে যেমন ত্যাগ স্বীকার করেছি আমার ক্রিকেট খেলার জন্য। বিয়ের পর বউয়ের সেই দায়িত্ব আরো বেড়ে যাবে। আশা করি আরো বেশি অনুপ্রেরণা হয়ে আসবে সে আমার জীবনে।’

সূত্র: sportszone24.com

খেলাধুলার প্রতি মূর্হর্তের খবর জানুন এখানে

এই পোস্টটি যদি ভালো লেগে থাকে তাহলে ফেইসবুক পেজটি লাইক দিন এবং এই রকম আরো খবরের এলার্ট পেতে থাকুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *