পানিতে মস্তিষ্ক ধ্বংসকারী জীবাণু, যুক্তরাষ্ট্রের আট শহরে সতর্কতা জারি

 

যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাস অঙ্গরাজ্যের বাসা বাড়ির সাপ্লাইয়ের পানিতে এক প্রকার বিরল অ্যামিবার সন্ধান পাওয়া গেছে। এই ঘটনার পর আটটি শহরে সতর্কতা জারি করা হয়েছে। সবচেয়ে ভয়ঙ্কর বিষয় হলো এককোষী মুক্তজীবী এই প্রাণীটি মানুষের শরীরে ঢুকতে পারলে মস্তিষ্ক ধ্বংস করে দেয়।

নাইজেলরিয়া ফ্লাওয়ারি’ পানির মাধ্যমে ছড়ায়। মস্তিষ্কে ঢুকে স্নায়ু ধ্বংস করে ফেলে। নদী, পুকুর, হ্রদ ও ঝরনার পানি যেখানে উষ্ণ, সেখানে এ ধরনের অ্যামিবা বাস করে। এ ছাড়া শিল্পকারখানার উষ্ণ পানি পড়ে এমন মাটি ও সুইমিংপুলেও এ ধরনের অ্যামিবার দেখা মেলে। টেক্সাসের পানিতে অ্যামিবার সন্ধান পাওয়ার পর সেখানকার লেক জ্যাকশন, ফ্রিপোর্ট, এনগ্লিটন, ব্রাজোরিয়া, রিচউড, ওস্টার ক্রেক, ক্লুট, রোজেনবার্গ শহরে এ্ররইমধ্যে জারি করা হয়েছে সতর্কতা।

দ্য টেক্সাস কমিশন অন এনভায়রনমেন্টাল কোয়ালিটি টয়লেটের ফ্ল্যাশ ছাড়া এই পানি ব্যবহার নিষিদ্ধ করেছেন।

এর আগে পাকিস্তানে ‘নাইজেলরিয়া ফ্লাওয়ারি’ নামের এই অ্যামিবার সন্ধান পাওয়া যায়। ২০১২ সালে দেশটিতে এর কারণে অনেক মানুষের মৃত্যু হয়। এটি সাধারণত মানুষ যখন সাঁতার কাটে তখন নাক দিয়ে প্রবেশ করে। নাইজেলরিয়া ফ্লাওয়ারি’কে বিজ্ঞানীরা ‘মগজ-খেকো’ অ্যামিবাও বলে থাকেন।

এ অ্যামিবা মস্তিষ্কে ঢুকে পড়লে মারাত্মক কোনও উপসর্গ দেখা যায় না। প্রাথমিক অবস্থায় লক্ষণ থাকে হালকা মাথাব্যথা, ঘাড়ব্যথা, জ্বর ও পেটব্যথার। ফ্লোরিডার স্বাস্থ্য বিভাগের তথ্য অনুযায়ী, যুক্তরাষ্ট্রে অ্যামিবায় এখন পর্যন্ত ১৪৩ জন সংক্রমিত হয়েছেন। এর মধ্যে মাত্র চারজন বাঁচতে পেরেছেন।

২০০৯ থেকে ২০১৮ সালে যুক্তরাষ্ট্রে ৩৪ জন আক্রান্ত হয়েছেন বিরল এই রোগে।

সূত্র: বিবিসি

এই পোস্টটি যদি ভালো লেগে থাকে তাহলে ফেইসবুক পেজটি লাইক দিন এবং এই রকম আরো খবরের এলার্ট পেতে থাকুন

 আরো পড়তে পারেন:  

Loading...
আরো পড়তে পারেন:  বিরাজনীতিকীকরণ দেশের জন্য বিপদ ডেকে আনবে

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *