এক বছরে ১২ হাজার ২৩৪ বার টুইট করে সব রেকর্ড ভাঙলেন ট্রাম্প!

টুইটের ক্ষেত্রে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প নিজেই নিজের সব রেকর্ড ভেঙে ফেললেন। তিনি ২০২০ সালে ১২ হাজার ২৩৪ বার টুইট করেন। আগের বছর এ সংখ্যা ছিল ৭ হাজার ৭৮৩। সারাবিশ্বে ব্যক্তিগত টুইটে ওই বছর সর্বোচ্চ রেকর্ড ছিল তার। এবারের রেকর্ডটিও ট্রাম্পেরই। এ জন্যে তাকে ‘টুইটার ট্রাম্প’ হিসেবে অভিহিত করছেন কেউ কেউ।

গত বছর ট্রাম্পের টুইট শুরু হয় ১ জানুয়ারি স্থানীয় সময় সকাল ৮টা ৩২ মিনিটে বাগদাদ দূতাবাস থেকে ইরান সমর্থিত মিলিশিয়াকে সরিয়ে নিতে ফক্স টিভির একটি নিউজ উদ্ধৃত করে।

ট্রাম্পকে অপসারণের ট্রায়াল দিয়ে বছরটি শুরু হয়েছিল। তবে সেই ট্রায়ালে তাকে শাস্তি দেওয়া অর্থাৎ হোয়াইট হাউজ থেকে অপসারণ করা সম্ভব হয়নি রিপাবলিকানদের কারণে। একইভাবে সাধারণ নির্বাচনে গণরায়ে পরাজিত হয়েও তিনি তা মেনে নিতে চাচ্ছেন না। বছরের শেষ টুইটটি ছিল স্টক মার্কেটে তেজিভাব আসা এবং এর ফলে পেনশন নিয়ে আমেরিকানদের মধ্যে সৃষ্ট শঙ্কার অবসান ঘটবে বলে মন্তব্যে। অর্থাৎ ‘যুক্তরাষ্ট্রের ইতিহাসে সবচেয়ে বেশি তেজিভাব দেখা দেয় স্টক মার্কেটে’-এমন অভিমত পোষণ করে বছরের শেষ টুইট করেন তিনি।

এ টুইট করেন গত ৩১ ডিসেম্বর বৃহস্পতিবার স্থানীয় সময় রাত ১০টা ৪৪ মিনিটে।

ট্রাম্পের টুইটার আর্কাইভের তথ্য অনুযায়ী, গত বছর তিনি টুইট ও রি-টুইট করেছেন ১২,২৩৪ বার, যা আগের বছরের চেয়ে অনেক বেশি। এর আগের বছর তথা ২০১৯ সালে তিনি টুইট করেন ৭,৭৮৩ বার টুইট করেন। ২০১৮ সালে করেছিলেন ৩,৫৫৬ বার। ২০১৭ সালে ২,৫৯৩ এবং ২০১৬ সালে করেছিলেন ৪,২২২ বার।

গত বছরের ৩ নভেম্বরের নির্বাচনে নিজের মতামত প্রচারের ক্ষেত্রে টুইটকে অন্যতম অবলম্বনে পরিণত করেন ট্রাম্প।

সূত্র: বিডি প্রতিদিন

এই পোস্টটি যদি ভালো লেগে থাকে তাহলে ফেইসবুক পেজটি লাইক দিন এবং এই রকম আরো খবরের এলার্ট পেতে থাকুন

 আরো পড়তে পারেন:  

আরো পড়তে পারেন:  যুক্তরাষ্ট্রের প্রতি হঠাৎ চীনের 'আপোষের বার্তা' কেন
মার্চের শুরু থেকে সংক্রমণ বাড়ছিল, সরকার শুধু সংখ্যা গুনছিল
/ জাতীয়, সব খবর
DSA should be abolished
/ জাতীয়, সব খবর
Loading...
আরো পড়তে পারেন:  আমার স্ত্রী আইসিইউতে মৃত্যুর সঙ্গে...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *